তারিখ : ১৬ অক্টোবর ২০১৮, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে জমি সংক্রান্ত জের মারধর,বাড়ি-ঘর ভাংচুর

নান্দাইলে জমি সংক্রান্ত জের বিধবা মহিলাকে মারধর,বাড়ি-ঘর ভাংচুর  
[ভালুকা ডট কম : ০৭ জুন]
ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার রাজগাতী ইউনিয়নের রাজগাতী গ্রামের মৃত ফিরোজ আলীর স্ত্রী আনোয়ারা বেগম (৪৫)কে মারধর সহ বাড়ি-ঘর ভাংচুর করার এক গুরুতর অভিযোগ পাওয়া গেছে।

থানায় দায়েরকৃত এক লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানাযায়, একই গ্রামের মৃত আব্দুল হামিদ মিয়ার পুত্র সিরাজ মিয়া, সিরাজ মিয়ার পুত্র হান্নান, আলমগীর হোসেন, সুমন মিয়া, জাহাঙ্গীর, আম্বিায়া খাতুন স্বামী সিরাজ মিয়া গংদের সাথে দীর্ঘদিন ধরে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিল। বিবাদীগণ উক্ত বিধবা মহিলার ভাসুর, ভাতিজা ও ভাবী। গত সোমবার (৪ঠা জুন) রাতে বিবাদীগণ উপচে পড়ে বিধবা মহিলা আনোয়ারার সাথে ঝগড়া করে। ঝগড়ার এক পর্যায়ে আনোয়ারা আক্তারকে মারধর করে এবং এসময় বিধবা মহিলার সঙ্গে থাকা টাকার কথি কেড়ে নিয়ে নগদ ১৫ হাজার টাকা ও ৪৫ হাজার টাকা মূল্যের স্বর্ণের চেইন গলা থেকে ছিনাইয়া নিয়ে যায়। বিধবা মহিলার ডাক চিৎকার করলে তাকে প্রাণে মেরে ফেলার চেষ্টা করলে জোরপ্রচেষ্টায় দৌড়ে জামাতা নাজমুল মিয়ার ঘরে প্রবেশ করলে নাজমুল মিয়ার বেড়ার ঘর বাইরাইয়া ভাংচুর করে। পরে মহিলার ডাক চিৎকারে স্থানীয় লোকজন দৌড়ে আসতে দেখে বিবাদীগণ পালিয়ে যাওয়ার সময় প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে যায়।

বিধবা মহিলাকে চিকিৎসার জন্য নাজমুল সহ স্থানীয় কয়েকজনের সহায়তায় নান্দাইল হাসাপাতালে ভর্তি করা হয়। সরজমিন গিয়ে জানাযায়, উক্ত বিবাদীগণ আনোয়ারা আক্তারের জমি বুঝিয়া দিবে বলিয়া বহুদিন যাবত পায়তারা করে আসছিল। বিবাদী সিরাজ মিয়ার বিরুদ্ধে নান্দাইল থানায় ও কোর্টে একাধিক মামলা ও জিডি রয়েছে বলে জানাযায়।

প্রতিবেশী ইসলাম উদ্দিন ও রফিকুল ইসলাম জানান, সিরাজ মিয়া ও তারপূত্রদের অত্যাচারে এলাকাবাসী অতিষ্ঠ। বিবাদীর নিকট আত্মীয় সিদ্দিক মিয়া, নুরুল ইসলাম ও বুলবুল মিয়া জানান, সিরাজ মিয়ার পুত্ররা মাদকসেবনকারী। তারা নিরহ লোকজনের উপর অত্যাচার ও ভয়ভীতিসহ হামলা-মামলার হুমকি দেখায়।

বিবাদীগণের বিরুদ্ধে স্থানীয় দুই ইউপি সদস্য বাবুল ও বাবলু মিয়া জানান,এ নিয়ে আমরা কয়েকবার সালিশ দরবার করেছি। দরবারে বিধবা মহিলার জায়গা এজবদলের মাধ্যমে বুঝিয়া দেওয়ার কথা থাকলেও অদ্যবধি পর্যন্ত না দেওয়ার কারন অজ্ঞাত।নান্দাইল মডেল থানার এএসআই দিলীপ কুমার অভিযোগের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। #





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অপরাধ জগত বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৩৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই