তারিখ : ১৫ নভেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

সখীপুরে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্র

সখীপুরে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্র রনি
[ভালুকা ডট কম : ২০ আগস্ট]
টাঙ্গাইলের সখীপুরে জমিজমা নিয়ে বিরোধে প্রতিপক্ষের হামলায় জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী শিক্ষার্থী রনি তালুকদার গত ১৩ দিন ধরে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন। গত ৭ আগস্ট বিকেলে উপজেলার দাড়িয়াপুর ইউনিয়নের প্রতীমাবংকী পশ্চিমপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ সময় অপর আহত রনির মা রিজিয়া বেগম (৪৫) মাথায় ১৩টি সেলাই নিয়ে ছেলের শোকে পাগল প্রায়। এ ঘটনায় রনির বাবা শাহজাহান তালুকদার বাদী হয়ে হামলাকারী প্রতিবেশী জব্বার তালুকদার, নূরু তালুকদারসহ চারজনকে আসামি করে সখীপুর থানায় মামলা করলেও গত ১৩ দিনেও তাদেরকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

জানা যায়, প্রতীমাবংকী পশ্চিমপাড়া এলাকার শাজাহান তালুকদার ও জব্বার তালুকদারের পরিবারের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমিজমা নিয়ে বিরোধ। এরই জের ধরে গত ৭ আগস্ট বিকেলে ওই জমির ওপর বাঁশঝাড় থেকে বাঁশ কাটা নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে জব্বার তালুকদার ও তার লোকজন শাজাহান তালুকদারের স্ত্রী রিজিয়া বেগমকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেয়। খবর পেয়ে ছেলে রনি তালুকদার এগিয়ে গেলে তাকেও লাঠি দিয়ে উপর্যূপরি মাথায় আঘাত করে গুরুতর আহত করে। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। রনির অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে ওই দিনই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেপার্ট করা হয়। রাস্তায় তার অবস্থা আরো খারাপ হওয়ায় জরুরি ভিত্তিতে তাকে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে তার মাথায় অপারেশন করা হয়। সেই থেকে রনি ওই হাসপাতালেই লাইফ সাপোর্টে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

মামলার বাদী শাহাজাহান তালুকদার বলেন- স্ত্রী সন্তান মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন হামলাকারীরা প্রকাশে ঘুরাফেরা করলেও পুলিশ তাদের গ্রেফতার করছে না। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সখীপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবদুল জব্বার বলেন- আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৩৮ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই