তারিখ : ১৪ নভেম্বর ২০১৮, বুধবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

প্রজন্মের ভাবনা’র নির্বাহী সম্পাদক রতির স্ত্রীর অনাকাঙ্খিত মৃত্যু

প্রজন্মের ভাবনা’র নির্বাহী সম্পাদক রতির স্ত্রী প্রিয়াংকার অনাকাঙ্খিত মৃত্যু
[ভালুকা ডট কম : ১৪ সেপ্টেম্বর]
যশোর সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও দৈনিক প্রজন্মের ভাবনা পত্রিকার প্রকাশক সম্পাদক মোহিত কুমার নাথের কনিষ্ঠ পুত্র প্রজন্মের ভাবনার নির্বাহী সম্পাদক পার্থ প্রতীম দেবনাথ রতির সহধর্মীনি প্রিয়াংকা দেবনাথ বৃহস্পতিবার রাতে যশোরের কুইন্স হাসপাতালে মৃত্যু বরণ করেছেন। মৃত্যুর কয়েক ঘন্টা আগে তিনি একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। ভেজাল ইনজেকশন দেওয়ার প্রায় সাথে সাথে তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন বলে প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে।

নিহতের স্বজনরা জানান, বৃহস্পতিবার বেলা ৩টার দিকে কুইন্স হসপিটালে অপারেশনের মাধ্যমে প্রিয়াংকা দেবনাথ একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। এটিই তার প্রথম সন্তান। অপারেশন করেন ডা: জাকির হোসেন। তিনি কিছু প্রয়োজনীয় ঔষধ লিখে দেন ব্যবস্থাপত্রে। সন্তান জন্ম দেওয়ার পর মা ও সন্তান সুস্থই ছিলেন। রাত ১০টার দিকে সেবিকা জেসমিন ব্যবস্থাপত্রে বর্ণিত “ইঞ্জেকশন” প্রিয়াংকা দেবনাথের হাতের শিরায় পুশ করেন। ইঞ্জেকশন দেওয়ার শুরুতেই প্রিয়াংকা দেবনাথের শরীরে “জ্বালাপোড়া” শুরু হলে তিনি ইঞ্জেকশন দিতে সেবিকাকে বারণ করেন। বারণ উপেক্ষো করে সেবিকা প্রিয়াংকা দেবনাথের শরীরে সম্পূর্ণ ইঞ্জেকশনটাই পুশ করেন। প্রায় সাথে সাথেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন প্রিয়াংকা দেবনাথ। ইঞ্জেকশনটা হাতের যে শিরাতে দেওয়া হয়েছিল, সেই শিরার একটা অংশ ধরে ফোঁসকা ভেসে ওঠে। খবর পেয়ে ডা: জাকির হোসেন সেখানে উপস্থিত হন।

এর আগে থেকেই প্রিয়াংকার শ্বশুর মোহিত কুমার নাথসহ পরিবারের সকল সদস্যই সেখানে উপস্থিত ছিলেন। ঘটনার আকস্মিকতায় তারা দিশেহারা হয়ে পড়েন। এই অনাকাঙ্খিত মৃত্যুকে কোনো ভাবেই মেনে নিতে পারছেনা পরিবারের সদস্যরা।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৩৭ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই