তারিখ : ১৩ নভেম্বর ২০১৮, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে সিনজেনটার প্রতিনিধি বিরুদ্ধে এলাকাবাসী অভিযোগ

নান্দাইলে সিনজেনটার প্রতিনিধি বিরুদ্ধে এলাকাবাসী অভিযোগ
[ভালুকা ডট কম : ১৫ অক্টোবর]
বাংলাদেশের স্বনামধন্য সিনজেনটা কোম্পানী ময়মনসিংহ অঞ্চল নেত্রকোনায় কর্মরত এসপিও মোশারফ হোসেনের বিরুদ্ধে এলাকাবাসী গুরুতর অভিযোগে এনে সিনজেনটা আঞ্চলিক ম্যানেজার বরাবর অভিযোগ দায়ের করেছে।

প্রাপ্ত অভিযোগে প্রকাশ, ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার গাংগাইল ইউনিয়নের পন্ডীতপুর গ্রামের মোশারফ হোসেন এলাকায় একজন বির্তকিত এবং গ্রাম্য কোন্দলের সাথে জড়িত ব্যক্তি হিসাবে পরিচিত। তিনি দীর্ঘদিন যাবৎ এলাকায় মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত এবং নান্দাইলের সাবেক এবং বর্তমান সদস্য সদস্যের বিরুদ্ধে ও এলাকার নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে ফেইজবুক সহ এলাকায় নানা মিথ্যা অপ-প্রচার চালিয়ে যাচ্ছে।

এলাকাবাসী আরো জানান, সিনজেনটা কোম্পানীর পরিচয়ে এলাকায় ইয়াবা বড়ি বিক্রি করে যাচ্ছে। মোশারফ হোসেন মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত থাকায় যে কোন সময় গ্রেফতার হতে পারে। সিনজেনটা কোম্পানীর পরিচয় দিয়ে এলাকায় মাদক ব্যবসা সহ বিভিন্ন অনিয়ম কাজে জড়িত থেকে অসামাজিক কার্যকলাপ চালিয়ে যাচ্ছে।

এলাকাবাসী বলেন, একটি স্বনামধন্য সিনজেনটা কোম্পানীর সুনাম নষ্ট করছেন এই কর্মচারী। স্বারকলিপিতে স্বাক্ষর করেন গাংগাইল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি কাজী আতাউল করিম বাবুল, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোঃ রফিকুল ইসলাম, আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ আনোয়ারুল হক, তারিকুল ইসলাম, আব্দুর রহমান সবুজ, নাজমুল হাসান ভূইঁয়া, শহিদুল ইসলাম পিয়ারুল, মোঃ তাহের উদ্দিন ও আব্দুস সাত্তার বাচ্চু প্রমুখ আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।

এব্যাপারে মোশারফ হোসেন জিজ্ঞাসা করলে তিনি জানান, স্থানীয় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে গোলযোগ থাকায় একটি পক্ষ আমার বিরুদ্ধে এই অভিযোগ দায়ের করেছে। #





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

ভালুকার বাইরে বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৩৭ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই