তারিখ : ২১ আগস্ট ২০১৯, বুধবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

গফরগাঁওয়ে পরকীয়া নিয়ে সালিশে এক ব্যক্তি খুন

গফরগাঁওয়ে পরকীয়া নিয়ে সালিশে এক ব্যক্তি খুন
[ভালুকা ডট কম : ১৪ আগস্ট]
ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলায় দুবাসিয়া গ্রামে প্রবাসীর স্ত্রীর সাথে ভাসুসের পরকীয়া নিয়ে সালিশ বৈঠক চলাকালে প্রতিক্ষের হাতে রফিকুল ইসলাম রহিত(৫৫) নামে এক ব্যক্তি খুন হয়েছে।ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার সকালে টাঙ্গাব ইউনিয়নের দুবাসিয়া  হোয়ালিরটেক গ্রামে।পাগলা থানার ওসি শাহীনুজ্জামান জানান,ঘটনায় জড়িত উছমান আলী ও মুক্তা বেগম নামে গৃহবধূকে আটক করা হয়েছে।লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠনো হয়েছে।

পুলিশ ও একাবাসী সূত্রে জানাযায়,ঔগ্রামের মালয়েশিয়া প্রবাসী এখলাছ মিয়ার স্ত্রী মুক্তা বেগমের সাথে দীর্ঘদিন যাবত মন দেয়া নেয়া চলছিল প্রতিবেশী ভাসুর উছমান আলীর।মন দেয়া নেয়ার এক পর্যায়ে মুক্তা বেগমের গর্ভে জন্ম নেয় এক ছেলে সন্তান।মুক্তার গর্ভের সন্তানটি প্রবাসী এখলাছ মিয়ার নাকি ভাসুর উছমান আলীর।এনিয়ে এলাকাবাসীর মনে সন্দেহ সৃষ্টি হয়।ঈদের আগের দিন প্রবাসী এখলাছ মিয়া মালয়েশিয়া থেকে বাড়ি আসেন।

এখলাছ এলাকাবাসীকে জানান,মুক্তা বেগম তার স্ত্রী এবং গর্ভের সন্তানটি তার।অপর উছমান আলীও নাকি দাবি করেন মুক্তা বেগমকে সে বিয়ে করেছে।মুক্তার গর্ভের সন্তানটি তার।এনিয়ে মঙ্গলবার সকালে উছমান আলী তার বাড়িতে সালিশ বৈঠকের আয়োজন করে।সালিশে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উছমান আলী প্রবাসী এখলাছ আলীর চাচাতো ভাই রফিকুল ইসলাম রহিতকে বাঁশের লাঠি দিয়ে মাথায় আঘাত করলে ঘটনা স্থলেই সে মারা যায়।

টাঙ্গাব ইউপি চেয়ারম্যান মোফাজ্জল হোসেন সাগর জানান,পরকীয়ার ঘটনার প্রতিবাদ করায় রফিকুল ইসলাম রহিতকে খুন করা হয়েছে।





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অপরাধ জগত বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৮৬ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই