তারিখ : ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, শুক্রবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

সংস্কার হচ্ছে রাণীনগরের শতবর্ষী হাতিরপুল ব্রিজ

সংস্কার হচ্ছে রাণীনগরের শতবর্ষী হাতিরপুল ব্রিজ,তবুও ঝুঁকিপূর্ণ
[ভালুকা ডট কম : ০৬ নভেম্বর]
ব্রিটিশ শাসন আমলে রাণীনগর-আবাদপুকুর জনগুরুত্বপূর্ন ও ব্যস্ততম সড়কের রতনডারী খালের উপর নির্মিত নওগাঁর রাণীনগরের শতবর্ষী ঐতিহ্যবাহী হাতিরপুল ব্রিজটি অবশেষে সংস্কার করা হচ্ছে। গত শনিবার বিকেলে ব্রিজটির ঝুঁকিপূর্ন অর্ধেক অংশের গাইডওয়ালসহ কিছু অংশ খালে ভেঙ্গে পড়েছে। সেই ভেঙ্গে যাওয়া অংশটিই বেইলী ব্রিজের আদলে সংস্কার কাজ শুরু করেছে নওগাঁ সড়ক ও জনপদ বিভাগ। এদিকে রাস্তা বন্ধ করে সংস্কার কাজ করায় চরম দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে উপজেলার পূর্বাঞ্চলের হাজার হাজার মানুষদের।

জানা গেছে, প্রায় শতবছর আগে উপজেলার কাশিমপুর রাজবাড়ির রাজা অন্নদা প্রসন্ন লাহেড়ী তার পূর্বাঞ্চলের স্ট্রেট দেখাশুনার জন্য রক্তদহ বিলের দক্ষিণ পাশের রতনডারী খালের উপর একটি কাঠেরপুল নির্মাণ করেন। পরবর্তিতে সেতুটি নষ্ট হওয়ায় জনস্বার্থে ব্রিটিশ শাসন আমলে চুন-শুরকি দিয়ে ওই স্থানে হাতিরপুল ব্রিজটি পুঃনির্মাণ করা হয়। গত আড়াই বছর আগে স্থানীয় সরকার প্রকৌশলী অধিদপ্তর থেকে সড়ক বিভাগের কাছে গেজেটের মাধ্যমে হস্তান্তর করা হয়। কিন্তু দীর্ঘদিন ব্রিজটির কোন সংস্কার না করায় এখন তা অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ন হয়ে দাড়িয়েছে। ব্রিজের উপর দিয়ে প্রতিদিন জেলা শহরসহ রাণীনগর উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে জেলার দ্বিতীয় বৃহত্তম ধানের হাট আবাদপুকুর হাটে শত শত ট্রাক, ট্র্যাক্টর, সিএনজি, অটোরিক্সা, মাইক্রোবাস ও ভ্যানসহ বিভিন্ন ধরণের যানবাহন চলাচল করে। উপজেলার পূর্ব এলাকার ৫টি ইউনিয়নসহ পাশ্ববর্তী আত্রাই, বগুড়ার আদমদীঘি ও নন্দীগ্রাম উপজেলার লাখ লাখ লোকজনের রাণীনগর উপজেলাসহ নওগাঁ জেলা শহরে যাতায়াতের জন্য একমাত্র ভরসা এই সড়কটি। অবশেষে ব্রিজটির ভাঙ্গা অংশের উপর বেইলী ব্রিজের আদলে সংস্কার করায় কিছুটা স্বস্তি ফিরে এসেছে এই সড়ক দিয়ে চলাচলকারী পথচারীদের মাঝে।

পথচারী হাফিজুল ইসলামসহ অনেকেই বলেন ব্রিজটিকে অনেক আগে থেকেই ঝুঁকিপূর্ন হিসেবে ঘোষনা করা হয়। এরপর থেকে জোড়াতালি দেওয়া হচ্ছে। ব্রিজটির অর্ধেক ঝুঁকিপূর্ন অংশের বেইলী ব্রিজের আদলে সংস্কার করা হচ্ছে এটি অত্যন্ত ভালো বিষয় কিন্তু সংস্কার করার পরও এই ব্রিজটি চলাচলের জন্য কতটুকু নিরাপদ তা কর্তৃপক্ষের মাথায় রাখা উচিত। সবচেয়ে ভালো হয় যদি পুরো ব্রিজটি ভেঙ্গে এর আদলে নতুন করে ব্রিজটি নির্মাণ করা হয়। তাহলে ব্রিজটিও নির্মাণ হলো আর শতবছরের ঐতিহ্যও বজায় থাকলো। তাই এই বিষয়ে আমরা সরকারের সুদৃষ্টি কামনা করছি।

নওগাঁ সড়ক ও জনপদ বিভাগের কার্যসহকারি রকিবুজ্জামান রকিব বলেন হাতিরপুল ব্রিজটির ভেঙ্গে যাওয়া ঝুঁকিপূর্ন অর্ধেক অংশের সংস্কার কাজ শুরু করা হয়েছে। এই অংশে বেইলী ব্রিজের আদলে সংস্কার করা হচ্ছে। সংস্কার কাজ শেষে আগামী শুক্রবার থেকে এই ব্রিজটি চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে। তবে সংস্কার করার পরও অধিক মালবাহি যানবাহনের জন্য এটি ঝুঁকিপূর্ণই থেকে যাবে।

নওগাঁ সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: হামিদুল হক জানান, এই ব্রীজটি ঝুকিপূর্ণ হওয়ায় ভারী যানবাহন চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। উপজেলা সদর থেকে আবাদপুকুর পর্যন্ত প্রায় ১৪কিলোমিটার সড়কের পুন:নির্মাণ, ব্রিজ ও কালর্ভাট নির্মাণের কাজ চলছে। এই হাতিরপুল ব্রিজটির পাশেই একটি সেতু নির্মাণ কাজ চলছে। সেতুটি নির্মাণ করা হলে এই হাতিরপুল ব্রিজ দিয়ে চলাচল অনেকটাই কমে যাবে। তবে এখানে ব্রিজটির আদলে নতুন একটি ব্রিজ নির্মাণের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১২২৬ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই