তারিখ : ০৮ জুলাই ২০২০, বুধবার

সংবাদ শিরোনাম

ভালুকার করোনা আপডেট

২৯ জুন ২০২০, সোমবার
আক্রান্ত
২৪ ঘন্টা মোট
৫ জন ২২৯ জন
সুস্থ
২৪ ঘন্টা মোট
০ জন ৮২ জন
মৃত্যু
২৪ ঘন্টা মোট
০ জন ৩ জন

বিস্তারিত বিষয়

আইসিইউতে নাসিম, জাফরুল্লাহ'র অবস্থা অপরিবর্তিত

করোনাভাইরাস: অস্ত্রোপচারের পর আইসিইউতে নাসিম, জাফরুল্লাহ'র অবস্থা অপরিবর্তিত
[ভালুকা ডট কম : ০৫ জুন]
করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত বাংলাদেশের সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ নাসিমের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়েছে। এদিকে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর শারীরিক অবস্থা অপরিবর্তিত রয়েছে। তবে তিনি সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন।

রাজধানীর শ্যামলীতে অবস্থিত বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালের আইসিইউ ইউনিটে চিকিৎসাধীন আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ নাসিমের শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে গত রাতে অবস্থার তাকে সিএমএইচ-এ নেয়ার চেষ্টা করা হয়। কিন্তু তার শারীরিক অবস্থার এতটাই নাজুক ছিল যে, তাকে স্থানান্তর করা সম্ভব হয়নি।

মোহাম্মদ নাসিমের ছেলে সাবেক সাংসদ তানভীর শাকিল জয় জানান, আজ তার বাবাকে কেবিনে নেয়ার কথা ছিল। হঠাৎ করে ব্রেইন স্ট্রোক করায় অবস্থা খারাপ হয়ে গেছে। তাকে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) নেয়ার পরিকল্পনা থাকলেও তা সম্ভব হয়নি। সকালে হাসপাতালের নিউরো সার্জন অধ্যাপক রাজিউল হকের নেতৃত্বে কয়েক ঘণ্টায় তার অস্ত্রোপচার সফল হয়। বর্তমানে তিনি আইসিইউতে ভেন্টিলেশন সাপোর্টে আছেন। আগামী ২৪ ঘণ্টা তাকে পর্যবেক্ষণে রাখা হবে।গত ১ জুন দুপুরে নাসিমকে রাজধানীর শ্যামলীর বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ভর্তির পর থেকে তিনি হাসপাতালটির আইসিইউ ইউনিটে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এদিকে আজ (শুক্রবার) দুপুরে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর ঘনিষ্ঠজনেরা জানিয়েছেন,ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর কিছুটা শারীরিক অবনতি ঘটেছে। চিকিৎসকরা মনে করেন সকাল থেকে এখন পর্যন্ত একই রকম। সকলের দোয়া চেয়েছেন ডা. চৌধুরী।ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বর্তমানে তার নিজের স্থা‌পিত গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতা‌লে ব্রিগেডিয়ার অধ্যাপক ডা. মামুন মুস্তাফি, অধ্যাপক ডা. নজীবের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসাধীন আছেন।

আজ সকাল ১০টায় গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো. ফরহাদ হোসেন গণমাধ্যমকে জানান, ডা. জাফরুল্লাহর শারীরিক অবস্থা রাতে একটু খারাপ হয়েছিল। কারণ হঠাৎ শ্বাসকষ্ট শুরু হয়েছিল। তবে সকালের দিকে শ্বাসকষ্ট একটু কমছে। সকালে অল্প তরল জাতীয় খাবারও গ্রহণ করেছেন তিনি।ফরহাদ হোসেন আরও বলেন, আইসিইউ বা ভেন্টিলেটরের সাপোর্ট এখনো লাগেনি। তার পরিবারের সদস্যরাও সবাই পাশে আছেন।

এর আগে গত ২৪ মে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর শরীরে প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। পরদিন পিসিআর ল্যাবে পুনরায় পরীক্ষা করা হলে সেখানেও তার করোনা পজেটিভ আসে। করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর প্লাজমা থেরাপি নেন ডা. জাফরুল্লাহ। এতে উপকার পাওয়ায় গত ২৮ মে রাতে দ্বিতীয়বারের মতো প্লাজমা নেন। এ ছাড়া গত ৩০ মে রাতে তৃতীয়বারের মতো ডায়ালাইসিস করান তিনি। সেই সঙ্গে ব্রেথিং (শ্বাস-প্রশ্বাস) থেরাপিও নেন ডা. জাফরুল্লাহ। তার স্ত্রী এবং ছেলেও করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।#




সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অন্যান্য বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১২৮১ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই