তারিখ : ০৩ আগস্ট ২০২১, মঙ্গলবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

শ্রীপুরে কৃষকের বসতবাড়িতে হামলার অভিযোগ

শ্রীপুরে কৃষকের বসতবাড়িতে হামলা,মারধরের অভিযোগ
[ভালুকা ডট কম : ১০ জুলাই]
গাজীপুরের শ্রীপুরে নেশা দ্রব্য প্রাণ করে রাতের আঁধারে বসতবাড়ির টিনের চালের উপর ইট পাটকেল ছঁড়ে হামলা চালিয়ে মারধরের অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষদের বিরুদ্ধে। গত সোমবার রাতে উপজেলার কাওরাইদ গ্রামের কৃষক নবী হোসেন ফকিরের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় কৃষক নবী হোসেন বাদী হয়ে ৩জনকে অভিযুক্ত করে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। অভিযুক্তরা হলো একই এলাকার মজিবর রহমান (৪৫),সুদীপ চন্দ্র সাহা (৪০) ও মাহাতাব উদ্দিন (৪০)।

থানার অভিযোগে জানা যায়,জমি সংক্রান্তের বিরোধের জের ধরে নবী হোসেনের নানা আ:ফকিরের ওয়ারিশদের সাথে আদালতে একটি বন্টননামা মামলা দায়ের করেন। বন্টননামা মামলাটি চলাকালিন সময়ে আদালত অর্পিত (ক) সম্পত্তি তফসিল গেজেট প্রকাশ করে সরকার। পরে বন্টন নামা মামলাটি আদালত খারিজ করে দেয়। আ:ফকিরের ওয়ারিশগন গেজেট বাতিলের বিরুদ্ধে আবার মামলা দায়ের করেন যা বর্তমানের চলমান রয়েছে। নতুন করে আবার আদালতে মামলা চলাকালিন সময়ে প্রতিপক্ষ মজিবুর রহমানের চাচী আনোয়ারা খাতুন পুনরায় নবী হোসেনদের বিরুদ্ধে শ্রীপুর থানায় আরেকটি মামলা দায়ের করেন। মামলাটি বিজ্ঞ আদালত সরেজমিনে তদন্ত করে জমি বাড়িঘরসহ সকল স্থাপনা দখল প্রতিবেদন নবী হোসেনের পক্ষে রায় দেয়। কিন্ত বিবাদী পক্ষ নবী হোসেনের পক্ষে রায়কে উপেক্ষা করে তার পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে থানায় ৬টি জি.ডি একাধিক অভিযোগ করে একের পর এক হয়রানী করছে। একটি জি.ডি কারণে ১৫ দিন কারাভোগ করেছেন।

নবী হোসেন ফকির জানান,আমরা প্রায় ২৫ বছর ধরে জমিতে ভোগ দখলে থেকে বাড়ি ঘর,মৎস্য খামারসহ বিভিন্ন প্রজাতির ফলদ ও বনজ গাছপালা লাগিয়ে দখলে আছি। থানায় অভিযোগ দায়ের পর গতকাল শনিবার সকালে মজিবুর রহমানের নেতৃত্বে পুনরায় আমার বসতবাড়িতে হামলা চালিয়ে আমার স্ত্রী হালিমা খাতুন(৩৫),নারভীন আক্তার (২৫),আম্বিয়া খাতুন (৩২), হারুন মিয়া (৪৫), আমানুর (২৫)কে মারধর করেছে। আহতদেরকে শ্রীপুর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এছাড়া আমার বোন ও স্ত্রী রফিক ফকিরের মাদ্রাসার সামনে থেকে জমিক্রয় করে ইটা বালি রাখলে মজিবুর রহমান মাদ্রাসার ছাত্রদের কে নিয়ে ইটা ও বালি নিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মজিবরের সাথে একাধিকবার যোগাযোগ করে তার ফোন রিসিভ না করায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মর্কতা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান  অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যাবস্থা নেয়া হবে।#



সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অপরাধ জগত বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১৩১৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই