তারিখ : ৩০ নভেম্বর ২০২২, বুধবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

শাহজাদপুর উপজেলা প্রশাসন ও গ্রামবাসী সংঘর্ষ

শাহজাদপুর উপজেলা প্রশাসন ও গ্রামবাসী সংঘর্ষ
[ভালুকা ডট কম : ২১ আগস্ট]
সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নের বলদীপাড়া-হলদীঘর গ্রামে শত বছরের প্রাচীন খেলার মাঠে সরকারি আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর নির্মাণকে কেন্দ্র করে প্রশাসনের সাথে স্থানীয় জনগণের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষের সময় গ্রামবাসীর ছোঁড়া ঢিলের আঘাতে সহকারী কমিশনার (ভূমি) লিয়াকত সালমানের মাথা ফেটে গেছে। এসময় নারী ও  শিশুসহ অন্তত ৬জন আহত হয়েছে। সংঘর্ষ চলাকালে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের গাড়ীও ভাংচুর করা হয়েছে। সংঘর্ষের এক পর্যায়ে শতশত গ্রামবাসীর বাধার সম্মুখে প্রশাসন পিছু হটতে বাধ্য হয়েছে। রবিবার বলা ১১টার দিকে উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নের বলদিপাড়া মাঠে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, শত বছরের পুরনো বলদিপাড়া মাঠে আশে পাশের কয়েক গ্রামের শিশু কিশোররা খেলাধূলা করে। চলতি বছর এখানে গুচ্ছ গ্রামের জন্য জায়গা নির্ধারণ হয়েছে। এমন খবরে বিগত কয়েক মাস ধরে গ্রামবাসী একজোট হয়ে  মানববন্ধন সহ নানা কর্মসূচী পালন করছে। কিন্তু প্রশাসন তা কোন আমলেই নিচ্ছেনা। উল্টো ঐ খেলার মাঠে গুচ্ছ গ্রাম করার জন্য উপজেলা প্রশাসন মরিয়া হয়ে উঠে। রোববার সকালে মাঠে বালু ফেলার জন্য মাপজোক করতে আসবে-এমন খবরে গ্রামের নারী পুরুষ শিশু সকলেই গ্রামের সড়কে জড়ো হয়। তারা ঐ পথে একটি কালভার্টে বাঁশ দিয়ে ব্যারিকেড দেয়। গ্রামবাসী বলছে, গ্রামবাসী গুচ্ছগ্রাম বন্ধের দাবীর কথা জানালেও প্রশাসনের কর্তারা কোন কথা শুনতে রাজি হয়নি। পরে দুপক্ষের মধ্যে বাকবিতন্ড শুরু হয়। এরই এক পর্যায়ে কে বা কারা ঢিল ছুড়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার গাড়ীর কাঁচ ভাংচুর করে। আর ঢিলের আঘাতে এ্যাসিল্যান্ড আহত হয়। তবে গ্রামবাসীর অভিযোগ ইউএনও সাথে বহিরাগত কিছু লোকজন এসেছিল তাদের ঢিল ও পুলিশের লাঠির আঘাতে আঘাতে শিশু সহ অন্তত ৫জন গ্রামবাসী আহত হয়েছে।

আহতরা হলেন-বলদীপাড়া গ্রামের শওকতের স্ত্রী মনিজা খাতুন (৪০), আব্দুস সালামের স্ত্রী আলেয়া খাতুন (৪২),কবিরের স্ত্রী ওজুফা খাতুন (৩৫), শাহাদতের স্ত্রী রেহেনা খাতুন (৩৯), আব্দুল হাইয়ের স্ত্রী কুমকুমি খাতুন (৩৩), আবু সাঈদের স্ত্রী আকলিমা খাতুন (৫০), নুরাল প্রামানিকের স্ত্রী মরিয়ম খাতুন (৫২) ও আলীমুদ্দিনের স্ত্রী মাজেদা খাতুন (৩৭)।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ তরিকুল ইসলাম জানান, প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ বরাদ্দের আশ্রায়ন প্রকল্প নির্মাণের লক্ষ্যে রবিবার আমি ও এ্যাসিল্যান্ড সরেজমিন পরিদর্শনসহ মাটি ভরাটের কাজ উদ্বোধন করতে যাই। এসময় এলাকার উশৃংখল কিছু উঠতি বয়সী যুবক ও মহিলারা পথরোধ করে ও অশালীন আচরণ করে। একপর্যায়ে পেছন থেকে অতর্কিত হামলা চালিয়ে আমার গাড়ী ভাংচুর করে এবং ইটপাটকেল নিক্ষেপ করলে এ্যাসিল্যান্ডের মাথা ফেটে যায়। দ্রুত এ্যাসিল্যান্ডকে উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে তাকে সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

শাহজাদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম জানান, সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করেছে। বর্তমানে পরিস্থিতি  স্বাভাবিক রয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহজাদপুরের বাইরে থাকায় এখনও কোন মামলা হয়নি।

কায়েমপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জিয়াউল আলম ঝুনু জানান, সরকারী খাস জমিতে গুচ্ছগ্রামের জন্য বরাদ্দ এসেছে। খাসজমিতে বাধা দেয়ার এখতিয়ার কারোরই নেই। গ্রামবাসীকে হয়তো একটি চক্র ভূল বুঝিয়ে ভুল পথে পরিচালিত করছে।

জেলা প্রশাসক ড.ফারুক আহমেদ জানান, যে জায়গা নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। সেটি সমাধানের জন্য স্থানীয় সংসদ সদস্যসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গের সাথে আলোচনা করে মাঠের পাশেই নতুন খাসজমিতে গুচ্ছ গ্রাম করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সেই জায়গা পরিদর্শনের জন্য রোববার সকালে টিএনও, এসিল্যান্ড ও চেয়ারম্যান বলদিগ্রামে যান। কিন্তু সেখানকার দুষ্ট প্রকৃতির কিছু মানুষ সাধারণ গ্রামবাসীকে ভূল ব্যাখা দিয়ে সড়কে জড়ো করে সরকারী কাজ বাধা গ্রস্ত করে। এক পর্যায়ে উত্তেজিত গ্রামবাসী গাড়ি ভাংচুর ও এ্যাসিল্যান্ডকে আহত করে। পরে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে। #



সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৫৩৫ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই