তারিখ : ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, বুধবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

ভালুকায় পতিত জমিতে গড়ে উঠছে পুষ্টি বাগান

ভালুকায় পতিত জমিতে গড়ে উঠছে পারিবারিক পুষ্টি বাগান
[ভালুকা ডট কম : ১৮ নভেম্বর]
ভালুকার বিভিন্ন গ্রামে বসত বাড়ীর আঙ্গিনায় ফেলে রাখা পতিত জমিতে কৃষি বিভাগের সহায়তায় কৃষানীদের গড়ে উঠা পারিবারিক পুষ্টি বাগান গুলিতে শোভা পাচ্ছে নানা রকম শীত কালীন শাক সবজি। এসব পুষ্টি বাগানে উৎপাদিত শাক সবজি নিজেদের চাহিদা মিটিয়ে আত্মীয় সজনকে দেওয়ার পরও বাজারে বিক্রি করে অতিরিক্ত অর্থ আয় করছেন অনেকে।

উপজেলার হবিরবাড়ী গ্রামের সিরাজুল হকের স্ত্রী কৃষানী ইসরাত জাহান ইতি জানান উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সাইদুল ইসলামের সহযোগিতায় তার বাড়ীর আঙ্গিনায় দেড় শতক পতিত জমিতে গড়ে তুলেছেন পারিবারিক পুষ্টি বাগান। পারিবারিক পুষ্টি বাগান করার আগে উপজেলা কৃষি অফিসে অন্যান্য কৃষকের সাথে সবজি চাষের উপর দুই দিনের প্রশিক্ষণ গ্রহন করেছেন তিনি। কৃষি বিভাগ হতে প্রশিক্ষণ ভাতা,বীজ,সার, ঝাঝরি, নেট ও প্রদর্শণী সাইন বোর্ড দেয়া হয়েছে তাকে। তার পুষ্টি বাগানে লাল শাক, পুঁই শাক, পালং শাক, ডাটা. মূলা, গাজর, বেগুন সহ বিভিন্ন জাতের সবজি আবাদ করেছেন। তিনি আরও জানান উপ-সহকারী কৃষি কর্মকতার্র পরামর্শে মাটির স্বাস্থ্য রক্ষা ও উর্বরতা বৃদ্ধির জন্য কেচোঁ সার ব্যবহার করছেন। একই গ্রামের নূরুল ইসলামের স্ত্রী কৃষাণী সুফিয়া আক্তার পারিবারিক পুষ্টি বাগান করে সফলতা পেয়েছেন।

এ ব্যপারে ওই ব্লকের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সাইদুল ইসলাম জানান “ মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় এক ইঞ্চি জমিও পতিত রাখা যাবেনা, এ লক্ষ্যকে সামনে রেখে বাড়ীর আঙ্গিনায় ফেলে রাখা পতিত জমি কাজে লাগাতে কৃষি বিভাগের সহযোগিতায় গড়ে উঠছে পুষ্টি বাগান। এসব পারিবারিক পুষ্টি বাগান দেখে আশ পাশের অনেক কৃষক পুষ্টি বাগান করতে উদ্বুদ্ধ হচ্ছেন।#



সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

ভালুকা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৮৯০৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই