তারিখ : ২৫ আগস্ট ২০১৯, রবিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

রাণীনগরে প্রতিপক্ষের মারপিটে গুরুত্বর আহত-৩

রাণীনগরে মামলা না তোলার অপরাধে মারপিটে গুরুত্বর আহত-৩,থানায় অভিযোগ
[ভালুকা ডট কম : ১২ মে]
নওগাঁর রাণীনগরের মিরাট ইউনিয়নের মিরাট উত্তরপাড়ায় (হিন্দুপাড়া) থানায় দায়ের করা মামলা তুলে না নেওয়ায় এবং পৈতিক জমিজমার কোন্দলের জেরে প্রতিপক্ষের মারপিটে গুরুত্বর আহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

প্রতিপক্ষের মারপিটে গুরুত্বর আহত ওই গ্রামের মৃত-অমলের ছেলে শ্যামল (৫০) ও তার স্ত্রী দুর্গা (৪৫) এবং নিমাইয়ের স্ত্রী মলি (২৮) গুরুত্বর আহত অবস্থায় রাণীনগর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এঘটনায় থানায় একটি অভিযোগ প্রদান করেছে ভুক্তভোগীররা।

নিমাইয়ের স্ত্রী ভুক্তভোগী মলি বলেন, আমাদের প্রতিবেশী মৃত- অধিরের ছেলে পলাশ কয়েক বছর আগে জোর করে আমার ঘরে প্রবেশ করে আমার শ্লীতহানীর চেষ্টা করে। এই ঘটনায় আমি বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করি। সেই মামলা তুলে নেওয়ার জন্য দীর্ঘদিন যাবত আমাকেসহ আমার পরিবারকে বিভিন্ন রকমের হুমকি-ধামকী প্রদান করে আসছে পলাশ ও তার পরিবারের সদস্যরা। এছাড়াও তারা নাকি আমার শ্বশুরের জমি পাবে বলে আমাদের দখলকৃত জমি জোরপূর্বক জোবর দখল করে আসছে।

এই সব অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে গেলেই ভারতে বসবাসরত (অবৈধ ব্যবসার সঙ্গে জড়িত) অধিরের ছেলে বাবলু, সিধি, ডালিমসহ (দেশে এসেই) বিধান, আদিত্য, মেয়ে অর্চনা ও কলাবতি আমাদের উপর একাধিকবার হামলা করেছে।থানায় করা মামলা তুলে না নেওয়ার কারণে শুক্রবার দুপুরে হুমকি-ধামকী প্রদানের সময় কথাকাটি হয়। এর এক পর্যায়ে অধিরের মেয়ে অর্চনা, কলাবতি, ছেলে বিধান, আদিত্যসহ কয়েকজন দেশীয় অস্ত্র হাতে নিয়ে আমাদের বাড়িতে প্রবেশ করে অতর্কিত ভাবে হামলা করে। এছাড়াও আমাদের মাটির বাড়ির দেয়াল, ঘরের দোরজা, বেড়া ভেঙ্গে ফেলেছে। এসময় তাদের মারপিটে আমরা ক’জন গুরুত্বর আহত হই।তাদের হুমকি-ধামকীর ভয়ে পরিবারের কেউ বর্তমানে বাড়িতে যাওয়ার সাহস পাচ্ছে না। বাড়িতে গেলেই নাকি তারা আমাদের মেরে ফেলবে। এমতাবস্থায় আমরা পরিবারের সদস্যরা চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। কারণ এই পরিবারের সদস্যরা ডাকাতের চেয়েও খারাপ। এদের দ্বারা সবকিছুই করা সম্ভব। গ্রামের লোকজনরা এদের ভয়ে কোনঠাসা হয়ে থাকে। তাই আমরা সুষ্ঠু বিচারের আশায় থানায় অভিযোগ দিয়েছি। আমরা নিরাপত্তার সাথে আমাদের বাড়িতে গিয়ে বসবাস করতে চাই।

প্রতিপক্ষ অধিরের মেয়ে অর্চনা বলেন ওই পরিবার তাদের বাড়ির পাশ দিয়ে আমাদের বাড়িতে আসার জন্য কোন রাস্তা রাখেনি। তাই আমরা কোদাল দিয়ে বাড়ির বাড়তি অংশ কেটে রাস্তা বের করে নিয়েছি। তাদের বাড়িতে গিয়ে হামলা করার বিষয় সম্পন্ন মিথ্যে। এছাড়াও তারা আমার বাবার ভাগে পাওয়া জমিজমা অবৈধ ভাবে জোরপূর্বক দখল করে আসছে। তাই আমাদের পাওয়া জমি আমরা দখল করছি। আর গ্রামবাসীরা ওই পরিবার সম্পর্কে জানে। তারাও জমির বিষয়ে আজ পর্যন্ত কোন সমাধান করে দিতে পারেনি।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আজিজুল ইসলাম বলেন অধিরের মেয়ে অর্চনাসহ পরিবারের সদস্যরা খুবই বেপরোয়ারা। তারা কারো কথাই শুনতে চায় না। তারা দীর্ঘদিন যাবত ওই পরিবারকে নানা ভাবে অত্যাচার করে আসছে। আমাদের কোন সমাধানই অধিরের পরিবার মানতে চায় না। তারা গরীব-অসহায় দিনমজুর শ্যামলের পরিবারের সদস্যদের যে মারপিট করেছে তা খুবই অন্যায় হয়েছে। এছাড়াও তারা ওই পরিবারকে এখনও বিভিন্ন রকমের হুমকি-ধামকী দিয়ে আসছে বলে জানতে পেরেছি।

রাণীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এএসএম সিদ্দিকুর রহমান বলেন এই ঘটনায় ভুক্তভোগীর পরিবার থানায় এসে শনিবার বিকেলে একটি অভিযোগ প্রদান করেছে। আমি অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অপরাধ জগত বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৮৮ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই