তারিখ : ১৮ আগস্ট ২০১৮, শনিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে সড়ক দূর্ঘটনায় ৫ মাসে ১৪ জন নিহত

নান্দাইলে সড়ক দূর্ঘটনায় ৫ মাসে ১৪ জন নিহত,আহত অর্ধশতাধিক    
[ভালুকা ডট কম : ০৩ জুন]
ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলায় ২০১৮ সনের জানুয়ারী থেকে ৩১শে মে মাস পর্যন্ত সড়ক দূর্ঘটনায় ১৪জন নিহত ও অর্ধশতাধিক আহত হয়েছে। এই ৫ মাসে উপজেলায় ঘটে যাওয়া ১০টি সড়ক দূর্ঘটনায় ৩ স্কুল ছাত্রী, ২ কলেজ ছাত্র ও ১ স্কুল শিক্ষক সহ মোট ১৪ জন নারী-পুরুষ নিহত হয়েছে। এছাড়া আরও বেশ কয়েকটি দূর্ঘটনা ঘটলেও তাতে নিহতের কোন ঘটনা ঘটেনি।

দূর্ঘটনায় নিহত ব্যক্তিদের তালিকা  ১০ জানুয়ারী ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ হাইওয়ে সড়কের অরন্যপাশা নামক স্থানে বাসের চাকার পৃষ্টে রোকিয়া আক্তার নামে ষাটোর্ধ্ব মহিলা নিহত হয়। ১৮ই জানুয়ারী তাড়াইল-নান্দাইল সড়কে ট্রাক্টরের সঙ্গে সিএনজি সংঘর্ষে কলেজ ছাত্র (ফুটবলার) তানজীল সহ সিএনজি চালক নিহত হয় ও ২ জন আহত হয়। ১২ই ফেব্রুয়ারী নান্দাইল উপজেলার সদরের হাইওয়ে সড়কের চন্ডীপাশা স-মিল সংলগ্ন স্থানে দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ১জন চালক নিহত ও ৪ জন আহত হয়। ৫ই মার্চ কিশোরগঞ্জ-ময়মনসিংহ হাইওয়ে সড়কে পালাহার নামক স্থানে বাস নিয়ন্ত্রন হারিয়ে খাদে পড়লে কলেজ ছাত্র জাহাঙ্গীর ও এক শিশু নিহত হয় এবং প্রায় ৪০ জন আহত হয়। ৬ই মার্চ নান্দাইল পৌরসদরের বাস স্ট্যান্ড এলাকায় ট্রাকের ধাক্কায় নান্দাইল পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণীর ছাত্রী সোনিয়া (১৪) ও ১০ শ্রেণীর ছাত্রী কুলসুম আক্তার (১৬) নিহত হয়। এঘটনায় উক্ত বিদ্যালয়ের ছাত্রীরা উপজেলার সামনে মহাসড়কের উপর প্রায় ৩ ঘন্টা ব্যাপী রাস্তা অবরোধ সহ মানববন্ধন করে। ১৫ই এপ্রিল তাড়াইল-নান্দাইল সড়কে সিএনজি ও লড়ী ট্রাক্টরের সংঘর্ষে গয়েশপুর গ্রামের শুক্কুর আলী পুত্র রিপন (২২) ও তাড়াইল উপজেলার ঝুটন ভৌমিক (৩০) নিহত হয়। ৩রা মে তাড়াইল-নান্দাইল সড়কে সিএনজি’ ধাক্কায় নান্দাইল রোড উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আবু বক্কর সিদ্দিক নিহত হন। এনিয়ে বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা উক্ত সড়কে রাস্তা অবরোধ সহ মানববন্ধন করেন। সম্প্রতি ৩১ মে ঘটে যাওয়া নান্দাইল চৌরাস্তা-টু- আঠারবাড়ী সড়কের ফুলবাড়ীয়া নামক স্থানে পিকআপ-ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষে নান্দাইল রোড উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণীর ছাত্রী বারুইগ্রামের আব্দুল হেলিমের কন্যা রোজিনা আক্তার, তাড়াইল উপজেলার দিলরুবা বেগম, ফুলবাড়ীয়া এলাকার সবুজ মিয়া ও আনজু মিয়া।

পরপর সড়ক দূর্ঘটনায় ১৪টি প্রাণ ও অর্ধশতাধিক আহত হলেও সড়ক ও জনপথ বিভাগের কর্তৃপক্ষ (বিটিআরসি) এবং প্রশাসনের তেমন কোন টনক নড়েনি। এতে নান্দাইলের প্রতিটি মানুষের জনমনে নানা ধরনের প্রশ্ন বিরাজ করছে। এবিষয়ে বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন নান্দাইল উপজেলা শাখার নেতৃবৃন্দ সড়ক দূর্ঘটনা রোধকল্পে নান্দাইল চৌরাস্তা গোলচত্বরে ট্রাফিক বসানো, ট্রাফিক আইনকানুন সমন্ধে সিএনজি,অটোবাইক ও ট্রাকচালকদেরকে নিয়ে সেমিনার সহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। #   






সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

অনুসন্ধানী প্রতিবেদন বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫২৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই